ঘাটাইলে সাংবাদিককে প্রাণনাশের হুমকি

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ২৯, ২০২০

ঘাটাইলে সাংবাদিককে প্রাণনাশের হুমকি

ঘাটাইলে সাংবাদিক এ বি এম আতিকুর রহমানকে ঘাটাইলের উপ সহকারি কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার শামিম আল মামুন গালিগালাজ সহ প্রাণনাশের হুমকি দিয়েছেন বলে জানা গেছে। এই বিষয়ে তিনি গত ২৭ সেপ্টেম্বর (রবিবার) লিখিত একটি অভিযোগ ঘাটাইল উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা বরাবর পেশ করেছেন।

শামিম আল মামুন ঘাটাইলের পাকুটিয়া বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কেন্দ্রে উপ সহকারি কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার হিসেবে কর্মরত রয়েছেন। সাংবাদিক আতিকুর রহমান মানবজমিন পত্রিকার ঘাটাইল উপজেলা প্রতিনিধি হিসেবে কর্মরত আছেন।

লিখিত অভিযোগ থেকে জানা যায়, ঘাটাইলে দেউলাবাড়ী ইউনিয়নের পাকুটিয়া স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কেন্দ্রে কর্মরত উপ সহকারি কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার শামিম আল মামুন তার অফিসে সাংবাদিক আতিকুর রহমানকে ডেকে নিয়ে গিয়ে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও প্রাণনাশের হুমকি প্রদান করেছেন। এই বিষয়ে আতিকুর রহমান লিখিত একটি অভিযোগ ঘাটাইল উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা বরাবর পেশ করেছেন। এছাড়া অভিযোগের অনুলিপি স্থানীয় এমপি, টাঙ্গাইল সিভিল সার্জন, ঘাটাইল উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবরও পাঠিয়েছেন বলে জানিয়েছেন আতিকুর রহমান।

আতিকুর রহমান জানান, পেশাগত দায়িত্ব পালন ও সংবাদ সংগ্রহ করতে পাকুটিয়া স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কেন্দ্রে গেলে সেখানে কর্মরত উপ সহকারি কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার শামিম আল মামুন তথ্য প্রদান করতে অপারগতা প্রকাশ করে আমাকে নানাবিধ হুমকি প্রদান করেন। তিনি তাকে নিয়ে পত্রিকায় লেখালেখি করতে নিষেধ করে আমাকে অকথ্য গালিগালাজ করে প্রাণনাশের হুমকি প্রদান করেন। এছাড়া শামিম সামাজিকভাবে হেয়প্রতিপন্ন করতে নানা ফন্দী ও অন্যকে দিয়ে মোবাইলে হুমকি প্রদান করছেন। এছাড়াও শামিম তার অফিসে একাধিকবার ডেকে নিয়ে গিয়ে এবং রাস্তাঘাটে অপমানিত করেছেন বলে জানান আতিকুর জানান।

এই বিষয়ে অডিও রেকর্ড সহ আরও প্রমাণাদি রয়েছে বলে আতিকুর রহমান জানান।

ঘাটাইলের উপ সহকারি কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার শামিম আল মামুন জানান, সাংবাদিক আতিকুর রহমান আর আমি একই এলাকার বাসিন্দা। তার সাথে কিছু বিষয় নিয়ে কথা কাটাকাটি হয়েছে। তাকে আমি মিথ্যা, উদ্দেশ্য প্রণোদিত এবং কারও দ্বারা প্ররোচিত না হয়ে সংবাদ পরিবেশন করতে নিষেধ করেছি। তথ্য ভিত্তিক ও সঠিক সংবাদ পরিবেশন করতে আমি তাকে পরামর্শ দিয়েছি বলে জানান তিনি।

ঘাটাইল প্রেসক্লাবের সভাপতি নজরুল ইসলাম বলেন, আমি বিষয়টা জেনেছি। আমাদের মাসিক সভায়েও বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হয়েছে। উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তার সাথে পরামর্শক্রমে সমস্যাটি সমাধানের চেষ্টা চলছে বলে তিনি জানান।

ঘাটাইল উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা সাইফুর রহমান লিখিত অভিযোগ পাওয়ার কথা স্বীকার করে জানান, আমরা তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করছি।